Breaking News

আমরা থাকবো, আপনারা থাকবেন তো? || RIGHTBD


রাজধানীর গুলিস্তানে মহানগর নাট্যমঞ্চে বিএনপির গণঅনশন কর্মসূচিতে দিনভর দলের নেতারা বক্তব্য দেন। তারা বলেন, আইনি প্রক্রিয়ায় খালেদা জিয়ার মুক্তি সম্ভব হবে না। তাই রাজপথে আন্দোলন সংগ্রামের মাধ্যমেই খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে হবে। তবে নেতাদের উদ্দেশ্যে এক সমর্থক প্রশ্ন করেন, ‘আমরা থাকবো, আপনারা থাকবেন তো?’  
কর্মসূচিতে রাখা সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে বিএনপির স্থায়ী কমিটির কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, সরকার একটাই ষড়যন্ত্র করছে। সেটা হচ্ছে, খালেদা জিয়াকে ছাড়া, বিএনপিকে ছাড়া, ২০ দলকে ছাড়া তারা ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারির প্রহসন আবার পুনরাবৃত্তি। বিএনপির বক্তব্য স্পষ্ট, ২০১৪ সালের সেই ষড়যন্ত্র বাংলাদেশের জনগণ আরেক বার বাস্তবায়ন হতে দেবে না।   
তিনি বলেন, এই স্বৈরাচার সরকারের হাত থেকে দেশকে মুক্ত করতে হলে আন্দোলনের বিকল্প নাই। তাই রাস্তায় আন্দোলন করেই গণতন্ত্রের মাতাকে মুক্ত করতে হবে, মুক্ত খালেদাক নিয়েই বিএনপি নির্বাচনকালীন সরকার প্রতিষ্ঠা করে নির্বাচনে যাবো। 
দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ বলেন, নিম্ন আদালত সম্পূর্ণভাবে সরকারের নিয়ন্ত্রণে পরিচালিত হচ্ছে, যার জন্যে খালেদা জিয়ার মুক্তি বিলম্বিত হচ্ছে। তবে যতো কৌশল করা হোক না কেনো এটা সম্ভবপর হবে না। তার কারণ একদিন না একদিন তাদের কৌশল ও ষড়যন্ত্র  বন্ধ হয়ে যাবে। কোনো এক পর্যায়ে গিয়ে তারা খালেদা জিয়াকে জামিন না দিয়ে আর পারবে না। খালেদা জিয়া মুক্ত হয়ে শিগগিরই দলের নেতাকর্মীরে মাঝে ফিরে আসবেন বলেও আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি। বিএনপির এই নেতা বলেন, যদি আইনি প্রক্রিয়ায় খালেদা জিয়ার মুক্তি না হয় তাহলে একমাত্র বিকল্প হলো রাজপথ। এ সময় নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, আপনারা আন্দোলনে থাকবেন তো? তখন সবাই হাত তুলে সম্মতি জানান। তখন তিনি বলেন, হাত তো দেখান, সময় মতো তো থাকেন না। তখন সবাই সমস্বরে বলে উঠেন, থাকবো স্যার। এ সময় পেছন থেকে একজন বলে উঠেন, ‘আমরা থাকবো, আপনারা থাকবেন তো?’ 
স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস বলেন, পৃথিবীর বহু রাষ্ট্র নায়কের এরকম জেল হয়েছে, আবার মুক্ত হয়েছে, জামিনও হয়েছে। আবার অনেকে সংগ্রামের মাধ্যমে মুক্ত হয়েছে। আজকে খালেদা জিয়াকে তিলে তিলে হত্যার করার চেষ্টা করা হচ্ছে। তিনি বলেন, স্বৈরশাসক এরশাদ হাত মিলিয়েছে হাসিনার সঙ্গে। সেও লজ্জ্বা পেয়ে গেছে; বাপরে বাপ তার চেয়ে বড় স্বৈরশাসক বাংলাদেশে এখন হাজির হয়েছে। 

No comments