Breaking News

৩০০ আসনেই ছাত্রলীগের প্রতিনিধি দল থাকবে: ছাত্রলীগ সভাপতি || RIGHTBD


একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রচারণা ও জনসংযোগের জন্য ছাত্রলীগের পক্ষ থেকে নির্বাচনী ৩০০ আসনেই প্রতিনিধি দল থাকবে। তারা প্রতিটি নির্বাচনী আসনে আওয়ামী লীগ মনোনীত সংসদ প্রার্থীর সাথে প্রচারণা চালাবে। আজ বুধবার জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় মিলনায়তনে শাখা ছাত্রলীগ আয়োজিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ‘আমাদের করণীয় শীর্ষক’ বিশেষ বর্ধিত সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন এ কথা বলেন।






তিনি আরও বলেন, ছাত্রলীগের প্রতিটি কর্মীকে তাদের পরিবার-আত্মীয় স্বজনদের নৌকার পক্ষে ভোট নিশ্চিত করতে হবে। তাহলেই নৌকার বিজয় সুনিশ্চিত। ভোটারদের মধ্যে ৫০ শতাংশ ভোট ভাসমান কৃষক-শ্রমিক-মজুর শ্রেণির। তারা অধিকাংশই গ্রামের মধ্যে থাকে। তারা দেশের রাজনীতি সম্বন্ধে খোঁজ-খবর রাখেন না। তাদের মাঝে আওয়ামী লীগ সরকারের উন্নয়নচিত্র পৌছে দিতে হবে। নারী ভোটার ও তরুণ ভোটারদের কাছে ছাত্রলীগের প্রতিটি কর্মীকে নৌকার জন্য ভোট চাইতে হবে। 
তিনি বলেন, ৫৪, ৭০-তে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ বাংলাদেশকে জেতাতে পেরেছে। ২০১৮-তেও জেতাতে পারবে। আওয়ামী লীগ না আসলে তরুণ প্রজন্ম নষ্ট হয়ে যাবে। ২০০১ সাল থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত বিএনপি সরকারের দুর্নীতি,অপশাসন তরুণ প্রজন্মের কাছে তুলে ধরতে হবে। রাজাকার নিজামী-মুজাহিদদের গাড়িতে জাতীয় পতাকা তুলে দেয়ার মত অপকর্ম জনগণের কাছে তুলে ধরতে হবে। বর্ধিত সভায় কেন্দ্রীয় কমিটিতে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের কর্মীদের সর্ব্বোচ্চ মূল্যায়ন করা হবে বলেও জানান তিনি।




এসময় বর্ধিত সভায় জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শেখ জয়নুল আবেদিন রাসেল বলেন, আমরা জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ জীবন বাজি রেখে নৌকার পক্ষে কাজ করার জন্য প্রস্তুত। তরুণ প্রজন্মের কাছে সরকারের সকল উন্নয়ন কর্মকান্ড পৌঁছাতে হবে। তরুণদের সক্রিয় অংশগ্রহণের মাধ্যমে শেখ হাসিনাকে ক্ষমতায় আনতে হবে।
বর্ধিত সভায় জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি তরিকুল ইসলাম বলেন, নির্বাচনে দল ক্ষমতায় না আসলে কেউ ঠিকমত থাকতে পারবে না। তাই ব্যক্তি-দল-সমাজ-রাষ্টের প্রয়োজনে নৌকাকে ভোট দিতে হবে।
সভায় জবি ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শেখ জয়নুল আবেদিন রাসেলের সঞ্চালনায় ও সভাপতি তরিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ ও শাখা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

No comments